Bartaman Patrika
অমৃতকথা
 

ঈশ্বর

বিশ্বাস মানে এটি যে ঈশ্বরের নাম, এই প্রক্রিয়ায় আমি ঈশ্বরকে লাভ করব এবং এটি আমার একান্তই করণীয়—এই আস্থা ও দৃঢ়তা। বিশ্বাস ও আস্থা না থাকলে জপ শুধু যে হয় না তাই নয়, জপ-সাধনা বেশীদিন চালানো যায় না। মাদ্রাজে যেতে আমি করমণ্ডল এক্সপ্রেসে উঠলাম; আমি বিশ্বাস নিয়েই উঠছি কারণ পূর্ব্বে আমি নিজে কোনদিন মাদ্রাজ যায়নি। অন্যেরা গেছেন তাঁদের কথায় বিশ্বাস করে আমি যাত্রা সুরু করেছি। ঈশ্বরীয় নামজপ সম্পর্কে শত শত মনীষী একই আশ্বাসবাণী দিয়ে গেছেন—সুতরাং জপে অবিশ্বাস করার কি আছে? অন্ধ বিশ্বাস এড়াতে যেমন আমরা পাঁচজনের কাছ থেকে একই বিষয় জেনে নেই, তেমনি বিভিন্ন মত ও পথের মনীষীরা ঈশ্বরীয় প্রসঙ্গে নামজপের সুফল সম্পর্কে একই মত পোষণ করেন। বিশ্বাস নিয়েই সুরু করতে হয়। সেই বিশ্বাসই পরিশেষে সত্যকে প্রত্যক্ষ করায়। বিশ্বাস আমাকে করতেই হয়। বিশ্বাস বাদ দিয়ে কোন দিন সত্যলাভ সম্ভব হয়নি।
একটি hypothesis ধরে নিয়ে অঙ্ক সুরু করতে হয়। পরিশেষে অঙ্কটির সমাধান আমরা লাভ করি। প্রথমেই যদি কুতর্ক জুড়ে দেই—কেন আমি এটিকে এই হিসাবে ধরব, তবে অঙ্কের অগ্রগতি সেখানেই রুদ্ধ হয়ে যায়। সকল নাম তাঁরই নাম, নামের স্মরণমননই নামীর সঙ্গ; সেই নাম-নামী হলেন আমার লক্ষ্য। আমি হাটতে সুরু করলে আমি একদা সেই লক্ষে পৌঁছাবই। আমার একমনে হাটাই হল আমার একাগ্র জপসাধনা। যত দিন লক্ষ্যে না পৌঁছাই ততদিন এই বিশ্বাস নিয়ে আমাকে হাটতেই হবে। আর, যদি আমি ভুল কথা শুনে ভুলপথে যাত্রা সুরু করে থাকি, তবে আমি যদি চলা অব্যাহত রাখি, তখন পথিমধ্যে আমাকে অনেকে স্বতঃই বলে দেন—এটি পথ নয়, অন্য পথ, অমুকটি পথ। আমার চলাটাই হ’ল আসল কথা। ভুল যদি থাকে তবে তা আজ বা বিলম্বে সংশোধিত হয়ই।
জপের শেষ প্রাপ্তি কি? আমি কি একজন মহাপুরুষ হবার জন্য জপ করছি অথবা বিরাট একটা-কিছু পাব বলে এত কষ্ট করছি? জপ আমরা করি আমাদের প্রাণের তাড়নায়, প্রকৃতির স্বভাবে, আপনার নিজস্ব তাগিদে। তথাকথিত প্রাপ্তিগুলি হ’ল সবই নিতান্ত গৌণ; মুখ্য হ’ল শান্তি, তৃপ্তি, অভয় ও আনন্দ। জপের এটিই হ’ল মহাপ্রসাদ। যাঁরা এ জিনিষের গুরুত্ব জীবনে বোঝেন না, বলা যায়, তাঁদের জপসাধনার প্রকৃত সময় এখনও আসে নি। তাঁরা ধন সম্পদ ঐশ্বর্য্য ক্ষমতা প্রতিপত্তি ইত্যাদি নিয়ে ব্যস্ত—সুতরাং সেগুলির পিছনে ছুটে তাঁদের আগে ক্লান্ত, শ্রান্ত ও নিবৃত্ত হতে হবে; তবেই তারা শান্তি তৃপ্তি অভয় ও আনন্দের যথার্থ অনুসন্ধানে প্রবৃত্ত হন। তার আগে তাঁরা কিছু-পাওয়ার লোভেই জপ করেন, না-পেলে জপ ছেড়ে দেন এবং জপের উপর বৃথা দোষারোপ করেন।
অযাচকের ‘জপ’ (১ম খণ্ড) থেকে  
07th  August, 2019
শ্রীকৃষ্ণ জন্মাষ্টমীর তাৎপর্য

 সনাতন ধর্মে বার মাসে তের পার্বণ। এই বহুবিধ ধর্মানুষ্ঠানের মধ্যে শ্রীকৃষ্ণের আবির্ভাবতিথি তথা জন্মাষ্টমী অনুষ্ঠান অন্যতম। ধর্মানুষ্ঠানের এই বৈচিত্র্য ধারা সেই এক ঈশ্বরের লীলাবিলাস। অর্থাৎ বহুভাবে সেই এক ঈশ্বরকে জানার প্রক্রিয়া। একং সদ্বিপ্রা বহুধা বদন্তি—অর্থাৎ সেই এক সদ্বস্তুকে গুণীজন বহুভাবে জানেন। বিশদ

 কুণ্ডলীশক্তি

 “মস্তিষ্ক-মধ্যগত ব্রহ্মরন্ধ্রস্থ অবকাশ বা আকাশে অখণ্ড-সচ্চিদানন্দস্বরূপ পরমাত্মার বা শ্রীভগবানের জ্ঞানস্বরূপে অবস্থান। তাঁহার প্রতি কুণ্ডলীশক্তির বিশেষ অনুরাগ, অথবা শ্রীভগবান তাঁহাকে নিরন্তর আকর্ষণ করিতেছেন।” এই আকর্ষণ কিরূপে বুঝিতে বা অনুভব করিতে পারা যায়? বিশদ

22nd  August, 2019
সাহিত্য ও চিত্রকলা

আমি কী বোঝাব তোমাদের কাকে বলে সাহিত্য, কাকে বলে চিত্রকলা। বিশ্লেষণ ক’রে কি এর মর্মে গিয়ে পৌঁছতে পারি। কোন্‌ আদি উৎস থেকে এর স্রোতের ধারা বাহির হয়েছে এক মুহূর্তে তা বোঝা যায়, যখন সেই স্রোতে মন আপনার গা ভাসিয়ে দেয়। 
বিশদ

21st  August, 2019
ভক্তের শ্রেষ্ঠত্ব 

আমার মনে হয়, প্রপত্তি সম্পর্কে আমার কিছু বলা দরকার। বোধ হয়, সেটা আমার সামাজিক ও আধ্যাত্মিক দায়িত্ব ও কর্ত্তব্যও। সংস্কৃতে প্র—পত+঩ক্তিন প্রত্যয় করে ‘প্রপত্তি’ শব্দটি নিষ্পন্ন।
বিশদ

20th  August, 2019
অমৃতকথা 

কামারপুকুরে একদিন ঠাকুর এসে বললেন, ‘খিচুড়ি খাওয়াও।’ খিচুড়ি রেঁধে রঘুবীরকে ভোগ দিলুম। মাড়োয়ারী (অর্থাৎ হিন্দুস্থানী) কিনা, তাই খিচুড়ি। তারপর বসে ভাবে ঠাকুরকে খাওয়াতে লাগলুম।  বিশদ

19th  August, 2019
সাধনা

যেমন সাধনা তেমন সিদ্ধি। মনকে ইষ্টমুখী করাই সাধনা। সংসারের দিকে মন ছুটছে, চাহিদা জাগছে নানান্‌ রকমের। কিন্তু কেন? সব চাহিদা সব আকুলতা সংসারকে দেবে কেন? এটা তো ঠিক যে, আমরা কিছুটা অংশ অন্ততঃ ভগবানের দিকে দিতে পারি। কাজেই সেটা দিয়েই শুরু করতে হবে।
বিশদ

18th  August, 2019
নারীপ্রগতি

 পাশ্চাত্যের নারীপ্রগতি বিবেকানন্দকে মুগ্ধ করেছিল। অন্যদিকে, স্বদেশের কন্যাদের তত্কালীন সামাজিক পরিস্থিতি স্মরণ করে তিনি ব্যথিত হতেন। বেদান্ত-ভিত্তিক ধর্মের ওপর আইরিশ কন্যা মার্গারেটের শ্রদ্ধা ও আস্থা তাঁকে আশান্বিত করে। স্বামীজীর আদর্শে অনুপ্রাণিত, আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত মার্গারেটকে ভারত সম্পর্কে আগ্রহ প্রকাশ করলে স্বামী বিবেকানন্দ মার্গারেটকে ভারতবর্ষে আহ্বান করেন। বিশদ

17th  August, 2019
 বিশ্বাস

 বিশ্বাস দুই প্রকারের হইয়া থাকে :- যে-বিশ্বাস সমতা নামাইয়া আনে এবং যে-বিশ্বাস সিদ্ধি নামাইয়া আনে। এই দুই বিশ্বাস ভগবানের দুই বিভিন্ন মূলভাবের সহিত সম্বন্ধ। বিশ্বগত ভগবানও আছেন, আবার বিশ্বাতীত ভগবানও আছেন। বিশদ

15th  August, 2019
অমৃতকথা 

মহাপ্রভুর অনবদ্যরূপ, অনুপম গুণ, সুচিশুদ্ধ চরিত্র ও অনির্বচনীয় মাধুর্যে সে যুগের প্রত্যেকটি মানুষ আকৃষ্ট হইয়াছিল। তাঁহার স্পর্শে ক্রূর শ্বাপদও হিংসা ভুলিয়াছিল। দুর্বৃত্ত, পাষণ্ড, দস্যু ও লম্পট বহু ব্যক্তি তাঁহার সংস্পর্শে ধর্মাত্মা হইল।  বিশদ

14th  August, 2019
আকর্ষণ 

“মস্তিষ্ক-মধ্যগত ব্রহ্মরন্ধ্রস্থ অবকাশ বা আকাশে অখণ্ড-সচ্চিদানন্দস্বরূপ পরমাত্মার বা শ্রীভগবানের জ্ঞানস্বরূপে অবস্থান। তাঁহার প্রতি কুণ্ডলীশক্তির বিশেষ অনুরাগ, অথবা শ্রীভগবান তাঁহাকে নিরন্তর আকর্ষণ করিতেছেন।”  
বিশদ

13th  August, 2019
রামকৃষ্ণগতপ্রাণা

যখন ঠাকুর চলে গেলেন, আমারও ইচ্ছা হল, আমিও চলে যাই। তিনি দেখা দিয়ে বললেন, ‘না, তুমি থাক। অনেক কাজ বাকী আছে।’ শেষে দেখলুম, তাইতো, অনেক কাজ বাকী। ঠাকুরের শরীরত্যাগের পর বৃন্দাবনে আছি। সকলেই তাঁর শোকে কাতর। একদিন রাত্রে ঠাকুর বলছেন, ‘তোমরা অত কাঁদছ কেন? আমি আর গেছি কোথা? এঘর আর ওঘর বৈ তো নয়?’
বিশদ

12th  August, 2019
 সদ্‌গুরু

 কেবল সদ্‌গুরুর অপেক্ষায় বসিয়া না থাকিয়া যথাসাধ্য ঈশ্বরচিন্তা, সাধুসঙ্গ ও সদ্‌গ্রন্থাদি পাঠ করিবার চেষ্টা করিও। জমি প্রস্তুত হইলে বীজ বপন করিলে সুফল ফলে ; এবং ইহা একটি প্রকৃতির রহস্য যে জমি প্রস্তুত হইলেই বীজ আপনি আসিয়া উপস্থিত হয়। অভাববোধ হইলেই তাহার পূরণ হয়। বিশদ

11th  August, 2019
দেবীমানবী

তিনি(ঠাকুর) বলতেন, ‘ওরে, ওর নাম সারদা, ও সরস্বতী।’(ঠাকুর গোলাপ-মাকেও বলেছিলেন, ‘ও সারদা, সরস্বতী—জ্ঞান দিতে এসেছে।’) সকলেই কি আর চিনতে পারে, মা? ঘাটে একখানা হীরা পড়ে ছিল। সব্বাই পাথর মনে করে তাতে পা ঘষে স্নান করে উঠে যেত। একদিন এক জহুরি সেই ঘাটে এসে দেখে চিনলে যে, সেখানে এক প্রকাণ্ড মহামূল্য হীরা। ঠাকুর সাক্ষাৎ ভগবান। আমি আর কে, আমিও ভগবতী।
বিশদ

10th  August, 2019
শ্রীগুরু

 প্রশ্ন: গুরুর কাছে কিছু চাওয়া উচিত কি? উত্তর: আমরা গুরুর কাছে সাধারণত বাস্তব অভাব পূরণের দাবী করে থাকি। কিন্তু যিনি প্রকৃত গুরু তিনি জানেন শিষ্যের প্রকৃত অভাব কি? যাতে শিষ্যের কল্যাণ হয়, তা শিষ্য চাইবার আগেই তিনি দিয়ে থাকেন। তাই গুরুর কাছে কিছু চাইতে নেই। বিশদ

09th  August, 2019
জ্ঞান

যথার্থ জ্ঞানের দ্বারা জীবের অবিদ্যারূপ উপাধির বিনাশ হয়, অন্য কোন উপায়ে ইহার নাশ হয় না। ব্রহ্মের সহিত আত্মার একাত্বানুভবই জ্ঞান, শ্রুতি ইহা বলেন। আত্মা কি, অনাত্মাই বা কি, এই বিচার যথাযথ ভাবে করিতে পারিলে আত্মজ্ঞানের উৎপত্তি হয়। অতএব জীব ও ব্রহ্মের স্বরূপ বিচারের দ্বারা নির্ণয় করা কর্তব্য। বিশদ

08th  August, 2019
গুরু মাহাত্ম্য

গুরু কে শিষ্য কে?—এই নিয়ে আজকের সমাজে নানা মতভেদ আছে। অনেকে আবার গুরুর সন্ধানে যত্রতত্র ঘুরে বেড়ান, মনোমত গুরুকরণ করবেন এ আশায়। এ ধরণের শিষ্যলাভ একদিকে খুবই ভাল। কারণ এর ফলে শিষ্যের প্রতি গুরুর দায়িত্ব কমে যায়। স্বভাবতই এই শিষ্যরাই গুরুদেবকে পরিচালনা করে থাকেন।
বিশদ

06th  August, 2019
একনজরে
নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: চার বছরের বি টেক করতে করতে মাঝপথে কোর্স ছেড়ে দিতে পারবেন ছাত্রছাত্রীরা। সেরকম সংস্থান রাখা হবে। সেই পড়ুয়া যে ক’বছর পড়বেন, তার স্বীকৃতি দেওয়া হবে। পরে অবশ্য নির্ধারিত সময়ের মধ্যে পুরো কোর্স শেষ করার সুযোগ থাকবে তাঁর। ...

 ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জে যেসব সংস্থার শেয়ার গতকাল লেনদেন হয়েছে শুধু সেগুলির বাজার বন্ধকালীন দরই নীচে দেওয়া হল। ...

সংবাদদাতা, লালবাগ: জিয়াগঞ্জ শহরের ভট্টপাড়ায় ভাগীরথীর পাশে সবুজে ঘেরা পরিবেশে ভবঘুরেদের জন্য চারতলা ঝাঁ চকচকে আবাসন তৈরি হলেও তা এখন ফাঁকা পড়ে। ৫০শয্যার ‘ভালোবাসা’য় চলতি বছরের প্রথম থেকেই শহর বা পুরসভা এলাকার ভবঘুরেদের নিয়মিত থাকা-খাওয়ার কথা থাকলেও তাঁদের দেখা নেই। ...

 নয়াদিল্লি, ২২ আগস্ট (পিটিআই): বুধবার রাতে নাটকীয় পরিস্থিতিতে গ্রেপ্তারের পর জেলে রাত কাটানো ভিআইপি তালিকায় ঢুকে পড়লেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম। আইএনএক্স মিডিয়ায় ৩০৫ কোটি ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

উচ্চপদস্থ ব্যক্তির সহায়তায় কর্মস্থলে জটিলতার সমাধান। বাতজ বেদনায় কষ্ট পাবার সম্ভাবনা। প্রেম-প্রণয়ে সাফল্য। পরশ্রীকাতর ব্যক্তির ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৮৯৮-কথা সাহিত্যিক তারাশংকর বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্ম
১৯৪৪- অভিনেত্রী সায়রাবানুর জন্ম
১৯৯৪- ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রমকারী সাঁতারু আরতি গুপ্তর (সাহা) মৃত্যু

ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭০.৭৯ টাকা ৭২.৪৯ টাকা
পাউন্ড ৮৫.৩৪ টাকা ৮৮.৫১ টাকা
ইউরো ৭৭.৯৮ টাকা ৮০.৯৪ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৩৮,২৮৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৬,৩২৫ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৩৬,৮৭০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪৪,০৫০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪৪,১৫০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

৬ ভাদ্র ১৪২৬, ২৩ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, সপ্তমী ৭/৪ দিবা ৮/৯। কৃত্তিকা ৫৬/৯ রাত্রি ৩/৪৭। সূ উ ৫/১৯/৪১, অ ৫/৫৯/১৩, অমৃতযোগ দিবা ৭/০ মধ্যে পুনঃ ৭/৫১ গতে ১০/২৩ মধ্যে পুনঃ ১২/৫৬ গতে ২/৩৭ মধ্যে পুনঃ ৪/১৮ গতে অস্তাবধি। রাত্রি ৭/৩০ গতে ৯/১ মধ্যে পুনঃ ৩/৩ গতে ৩/৪৮ মধ্যে, বারবেলা ৮/২৯ গতে ১১/৩৯ মধ্যে, কালরাত্রি ৮/৪৯ গতে ১০/১৪ মধ্যে।
৫ ভাদ্র ১৪২৬, ২৩ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, অষ্টমী ৫৫/৩০/৩৯ রাত্রি ৩/৩১/১। কৃত্তিকানক্ষত্র ৪৭/২৮/৩০ রাত্রি ১২/১৮/৯, সূ উ ৫/১৮/৪৫, অ ৬/২/১৩, অমৃতযোগ দিবা ৭/২ মধ্যে ও ৭/৫২ গতে ১০/২০ মধ্যে ও ১২/৪৮ গতে ২/২৭ মধ্যে ও ৪/৬ গতে ৬/২ মধ্যে এবং রাত্রি ৭/১২ গতে ৮/৫১ মধ্যে ও ৩/৪ গতে ৩/৫১ মধ্যে, বারবেলা ৮/২৯/৩৭ গতে ১০/৫/৩ মধ্যে, কালবেলা ১০/৫/৩ গতে ১১/৪০/২৯ মধ্যে, কালরাত্রি ৮/৫১/২১ গতে ১০/১৫/৫৫ মধ্যে।
২১ জেলহজ্জ

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
হলদিয়ায় প্রতারণার অভিযোগে গ্রেপ্তার ১
 

সরকারি চাকরি পাইয়ে দেওয়ার নামে আট লক্ষ টাকার প্রতারণার অভিযোগ। ...বিশদ

04:01:36 PM

হাওড়ায় নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেপ্তার ১ 
এক নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেপ্তার অভিযুক্ত। বৃহস্পতিবার রাতে হাওড়ার শ্যামপুর ...বিশদ

03:49:00 PM

লুধিয়ানায় সাইকেল মার্কেট এলাকায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড 

02:28:00 PM

চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণা, গ্রেপ্তার ৩
চাকরি পাইয়ে দেবার নাম করে ৩৭ লক্ষ টাকার প্রতারণার অভিযোগ। ...বিশদ

02:17:00 PM

৭০০ পয়েন্ট উঠল সেনসেক্স 

02:15:00 PM

সোমবার পর্যন্ত চিদম্বরমকে গ্রেপ্তার করতে পারবে না ইডি, জানাল সুপ্রিম কোর্ট  

01:40:00 PM